• ২৮শে জুলাই, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ , ১৩ই শ্রাবণ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ , ১৭ই জিলহজ, ১৪৪২ হিজরি

বেতাগীতে ইউপি নির্বাচনের নানা অভিযোগে স্বতন্ত্র প্রার্থীদের ভোট ও ফলাফল বর্জন

বিডিক্রাইম
প্রকাশিত জুন ২২, ২০২১, ১৮:০২ অপরাহ্ণ
বেতাগীতে ইউপি নির্বাচনের নানা অভিযোগে স্বতন্ত্র প্রার্থীদের ভোট ও ফলাফল বর্জন

স্বপন কুমার ঢালী, বেতাগী ॥ করোনার ঝুঁকি উপেক্ষা করে ব্যাপক নারী ভোটার উপস্থিতি, এজেন্টদের বের করে দেওয়া, মারধর, বাঁধার অভিযোগ ও ভোট বর্জনের মধ্য দিয়ে বরগুনার বেতাগীতে ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচন সম্পন্ন হয়েছে।

গতকাল সোমবার (২১ জুন) সকাল ৮টা থেকে বিকাল ৪টা পর্যন্ত ভোট চলে। নির্বাচনে ভোট গ্রহণ শুরুর আগেই কয়েকটি কেন্দ্র দখল করে নৌকার প্রার্থীর পক্ষে ভোট দেয়ার অভিযোগ করেছে প্রতিদ্বন্দ্বী স্বতন্ত্র চেয়ারম্যান প্রার্থীরা।

সকাল সাড়ে ৭ টায় বেতাগী সদর ইউনিয়নের ঘোড়া প্রতীকের প্রার্থীর এজেন্টদের প্রবেশ করতে দেয়নি আওয়ামী লীগ কর্মীরা।

 

যে কেন্দ্রে প্রবেশ করেছে ঐ কেন্দ্র থেকে বের করে দেয়াসহ মারধর করা হয়। স্বতন্ত্র প্রার্থী খ. ম. আমিনুর অভিযোগ করেন, বহিরাগতরা সশস্ত্র অবস্থায় কর্মীদের হুমকি দিলেও আইন শৃঙ্খলা বাহিনী নীরব ভূমিকা পালন করে । প্রতিটি কেন্দ্রে রাত থেকে সশস্ত্র নৌকার কর্মীরা অবস্থান করে।

 

বেতাগীর মোকামিয়া ইউনিয়ন স্বতন্ত্র চেয়ারম্যান প্রার্থী মো. মাহবুবুল আলম সুজন অভিযোগ করেন, নৌকার কর্মীরা তার এজেন্টদের বের করে দিয়ে প্রকাশ্যে নৌকা প্রতীকে সিল দেয়।

একই অভিযোগে সকাল ১১ টার দিকে অভিযোগে ভোটবর্জন করেছেন বিবিচিনি ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান স্বতন্ত্র প্রার্থী আনিচুর রহমান ও একই বিবিচিরি ইউনিয়নের ৮ নম্বর ওয়ার্ডের মেম্বর প্রার্থী রুহুল আমীন।

বুড়ামজুমদার ইউনিয়নের আনারস প্রতীক নিয়ে স্বতন্ত্র চেয়ারম্যান প্রার্থী মো. মোস্তাফিজুর রহমান ওরফে মিলন বলেন,‘ আমার এজেন্টদের মারধর করে বের করা হয়েছে। আমি ফলাফল বর্জন করে রিটানিং কর্মকর্তার কাছে লিখিত অভিযোগ দিয়েছি।’

 

বেতাগী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপেক্সে চিকিৎসাধীন সড়িষামুড়ি ইউনিয়নের কারাবন্দী স্বতন্ত্র চেয়ারম্যান প্রার্থী ইউসুফ আলী শরীফের স্ত্রী তাসলিমা বেগম বলেন, ‘ নির্বাচনের আগের দিন পূর্ব পরিকল্পিতভাবে আমাকে কুপিয়ে জখম করে।

যাতে আমাদের ভোটাররা কেউ ভয়ে যাতে কেন্দ্রে না আসতে পারে। সে অনুযায়ী ভোট কেন্দ্র দখলে নেয়।’

 

এছাড়াও আরও একাধিক স্বতন্ত্র চেয়ারম্যান প্রার্থী অভিযোগ করেন, ‘এটি প্রহসনমূলক নির্বাচন। জোর করে ভোটারদের নৌকায় ভোট দিতে বাধ্য করা হয়েছে।

 

 

বেতাগী থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) কাজী সাখাওয়াত হোসেন তপু বলেন,’ সুষ্ঠু পরিবেশে নির্বাচন সম্পন্ন হয়েছে, কোথাও বড় ধরণের বিচ্ছিন্ন ঘটনা ঘটনেনি। এছাড়া আইনশৃংখলার বিশেষ টিম সর্বদা মাঠে টহলে ছিল। ‘

 

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. সুহৃদ সালেহীন জানান,’ বিছিন্ন ঘটনা ব্যতিরেকে শান্তিপূর্ণ পরিবেশে নির্বাচন সম্পন্ন হয়েছে।