• ১৬ই এপ্রিল, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ , ৩রা বৈশাখ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ , ৬ই শাওয়াল, ১৪৪৫ হিজরি

বরিশালে সরকারি রাস্তা দখল করে দোকান নির্মানের অভিযোগ!

বিডিক্রাইম
প্রকাশিত ফেব্রুয়ারি ১৮, ২০২৪, ২০:৩৬ অপরাহ্ণ
বরিশালে সরকারি রাস্তা দখল করে দোকান নির্মানের অভিযোগ!

বিডি ক্রাইম ডেস্ক, বরিশাল ॥  বরিশালে অবৈধভাবে সরকারি রাস্তা দখল করে দোকানঘর নির্মানের অভিযোগ উঠেছে স্থানীয় এক ব্যবসায়ীর বিরুদ্ধে। আর এবিষয়ে উপজেলা নির্বাহী অফিসার বরাবর অভিযোগ দেয়ার দুই মাস পার হলেও এখনও কোন সুরাহা পায়নি এলাকাবাসী।

অভিযোগ সুত্রে জানা যায়, গত কয়েক মাস পূর্বে বরিশাল-৫ আসনের পানিসম্পদ প্রতিমন্ত্রী কর্নেল জাহিদ ফারুক শামীম শায়েস্তাবাদ ইউনিয়নের অন্তর্গত ০৩ নং চরআইচা লোহারপুল রাস্তার থেকে বাবুল শরীফ বাড়ী পর্যন্ত প্রায় ১ কিলোমিটার রাস্তার কার্পেটিং কাজ শুরু করেন। কিন্তু লোহারপুল রাস্তার প্রবেশদ্বারে মাসুদ বেপারী অবৈধভাবে সরকারি রাস্তার উপরে দোকানঘর নির্মানের ফলে রাস্তাটি ছোট হয়ে যায়। যেকারনে কোন ট্রাক,পিকআপ এমনকি এম্বুলেন্সও ঐ রাস্তা দিয়ে যাতায়াত করতে পারছেনা। এবিষয়ে শায়েস্তাবাদ ইউনিয়ন পরিষদের ০৩ নং ওয়ার্ডের ইউপি সদস্য মোঃ মোকলেছুর রহমান সরদার উপজেলা নির্বাহী অফিসার বরাবর অভিযোগ দেন। কিন্তু অভিযোগে দুইমাস পেরিয়ে গেলেও এখনো এর কোন সুরাহা হয়নি।ফলে ভোগান্তি পোহাচ্ছ ঐ এলাকার হাজারো জনসাধারন।
নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক স্থানীয় এক বাসিন্দা জানান, গত সপ্তাহে তার মা রাতে হঠাৎ অসুস্থ হয়ে পড়েন। এসময় তাকে হাসপাতালে নেয়ার জন্য এম্বুলেন্স খবরদিলে লোহারপুল রাস্তার প্রবেশদ্বার দিয়ে এম্বুলেন্সটি আসতে পারনি। ফলে তাকে ভ্যানে করে ঐপর্যন্ত নেয়ার পড়ে এম্বুলেন্সে উঠানো হয়।
এবিষয়ে অভিযুক্ত মাসুদ বেপারী জানান, রাস্তার জন্য যে ১০ ফিট জায়গা দরকার তা ওখানে রয়েছ। আসলে আমার বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্র করা হচ্ছে।
শায়েস্তাবাদ ইউনিয়ন পরিষদের ০৩ নং ওয়ার্ডের ইউপি সদস্য মোঃ মোকলেছুর রহমান সরদার জানান,সকলে সম্মতিতে তসিলদার এনে জায়গা মাপা হয় সেখানে প্রায় ৭-৮ ফুট সরকারি জায়গা বের হয় যা মাসুদ বেপারী ভোগ দক্ষল করছেন।এসময় সরকারী সার্ভেয়ার মো: শাহাজাদা ঐ স্থানে উপস্থিত ছিলেন।এছাড়া মাসুদ বেপারীকে ঐখানে পিলার দেয়ার কথা বললে সে গরমসি করেন।
সার্ভেয়ার অফিসার মো: শাহাজাদা মিয়া জানান, অভিযোগ পাওয়ার পরে আমাকে মাপার দায়িত্ব দেয়া হয়।পরবর্তীতে আমি মেপে প্রতিবেদন জমাদিয়ে দিয়েছি।
এবিষয়ে উপজেলা নির্বাহী অফিসারের মুঠোফোনে একাধিকবার ফোন দেয়া হলেও তিনি ফোনটি রিসিভ করেননি।
অন্যদিকে দ্রুত সমস্যাটি সমাধান করে রাস্তাটির উন্নয়ন ও প্রশস্তের জন্য সংশ্লিষ্ট কতৃপক্ষের নিকট দাবি জানিয়েছেন এলাকার জনসাধারন।