• ২১শে ফেব্রুয়ারি, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ , ৮ই ফাল্গুন, ১৪৩০ বঙ্গাব্দ , ১০ই শাবান, ১৪৪৫ হিজরি

বরিশালে জামানত হারাবেন ২৫ প্রার্থী

বিডিক্রাইম
প্রকাশিত জানুয়ারি ৮, ২০২৪, ২০:৩৮ অপরাহ্ণ
বরিশালে জামানত হারাবেন ২৫ প্রার্থী

বিডি ক্রাইম ডেস্ক, বরিশাল॥ দ্বাদশ সংসদ নির্বাচনে বরিশালের ছয়টি সংসদীয় আসনে বেসরকারি ফলাফলে ৩৫ জন প্রার্থীর ২৫ জনই জামানত হারিয়েছেন। সংসদ নির্বাচনের ঘোষিত ফলাফল বিশ্লেষণ করে এ তথ্য পাওয়া গেছে।

নির্বাচন কমিশনের বিধিমালা অনুযায়ী, কোনো প্রার্থীকে জামানত রক্ষা করতে হলে মোট প্রদত্ত ভোটের (কাস্টিং ভোট) আট ভাগের এক ভাগ থেকে অন্তত একটি ভোট বেশি পেতে হবে। কিন্তু এসব প্রার্থীরা প্রদত্ত বৈধ ভোটের আট ভাগের এক ভাগ ভোট না পাওয়ায় তারা জামানত হারাচ্ছেন।

বরিশাল জেলা নির্বাচন কর্মকর্তা শহিদুল ইসলাম এসব তথ্য জানান।

বরিশাল-১ (গৌরনদী-আগৈলঝাড়া) আসনে জামানত হারাচ্ছেন জাতীয় পার্টির লাঙল প্রতীকের সেরনিয়াবাত সেকান্দার আলী ও ন্যাশনাল পিপলস পার্টির (এনপিপি) আম প্রতীকের মো. তুহিন।

বরিশাল-২ (উজিরপুর-বানারীপাড়া) আসনে জামানত হারাচ্ছেন কৃষক শ্রমিক জনতা লীগের গামছা প্রতীকের নকুল কুমার বিশ্বাস, জাতীয় পার্টির লাঙল প্রতীকের ইকবাল হোসেন, তৃণমূল বিএনপির সোনালী আঁশ প্রতীকের আলহাজ্ব মো. শাহজাহান সিরাজ, ন্যাশনাল পিপলস পার্টির (এনপিপি) আম প্রতীকের সাহেব আলী ও স্বতন্ত্র প্রার্থী ঢেঁকি প্রতীকের মো. মনিরুল ইসলাম।

বরিশাল-৩ (বাবুগঞ্জ-মুলাদী) আসনে জামানত হারাচ্ছেন বাংলাদেশের ওয়ার্কার্স পার্টির হাতুড়ি প্রতীকের টিপু সুলতান, বাংলাদেশ সাংস্কৃতিক মুক্তিজোটের মো. ছড়ি প্রতীকের আজমুল হাসান জিহাদ, তৃণমূল বিএনপির সোনালী আঁশ প্রতীকের শাহানাজ হোসেন ও ঈগল প্রতীকের স্বতন্ত্র প্রার্থী মো. আমিনুল হক।

বরিশাল-৪ (মেহেন্দিগঞ্জ-হিজলা) আসনে আসনে জামানত হারাচ্ছেন জাতীয় পার্টির লাঙল প্রতীকের মিজানুর রহমান ও বাংলাদেশ সাংস্কৃতিক মুক্তিজোটের সোনালী আঁশ প্রতীকের হৃদয় ইসলাম চুন্নু।

বরিশাল-৫ (বরিশাল সদর) আসনে জামানত হারাচ্ছেন জাতীয় পার্টির লাঙল প্রতীকের ইকবাল হোসেন, ন্যাশনাল পিপলস পার্টি (এনপিপি) আম প্রতীকের আব্দুল হান্নান সিকদার, বাংলাদেশ সাংস্কৃতিক মুক্তিজোটের ছড়ি প্রতীকের মো. আসাদুজ্জামান ও বাংলাদেশ কংগ্রেসের ডাব প্রতীকের মাহাতাব হোসেন।

বরিশাল-৬ (বাকেরগঞ্জ) আসনে জামানত হারাচ্ছেন জাতীয় পার্টির লাঙল প্রতীকের নাসরিন জাহান রত্মা, তৃণমূল বিএনপির সোনালী আঁশ প্রতীকের টি.এম. জহিরুল হক, ন্যাশনাল পিপলস পার্টির (এনপিপি) আম প্রতীকের মো. মোশারফ হোসেন, জাসদের মশাল প্রতীকের মোহম্মদ মোহসীন, বাংলাদেশ কংগ্রেসের ডাব প্রতীকের মো. মাইনুল ইসলাম, ঈগল প্রতীকের স্বতন্ত্র প্রার্থী মো. শাহবাজ মিঞা, তরমুজ প্রতীকের স্বতন্ত্র প্রার্থী মো. কামরুল ইসলাম খান, রকেট প্রতীকের স্বতন্ত্র প্রার্থী মো. জাকির খান সাগর ও ঈগল প্রতীকের স্বতন্ত্র প্রার্থী মোহাম্মদ শামসুল আলম।